রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৭:৫৯ অপরাহ্ন




দূর্ঘটনায় বেঁচে যাওয়া যাত্রী পীরগঞ্জের পাভেলকে আর্থিক সহায়তা

দূর্ঘটনায় বেঁচে যাওয়া যাত্রী পীরগঞ্জের পাভেলকে আর্থিক সহায়তা

পীরগঞ্জ (রংপুর) প্রতিনিধি :
রাজশাহীর কাটাখালী ট্রাজেডিতে বেঁচে যাওয়া একামাত্র যাত্রী দ্বারিকাপাড়া গ্রামের মোখলেছুরের পুত্র পাভেলকে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হয়েছে। শনিবার সকালে পীরগঞ্জ পৌরসভাস্থ আর্শিবাদ ভবনে ৩৮ হাজার ১ শত ২০ টাকার চেক হস্তান্তর করেন পাভেলের সহায়তা তহবিলের গঠনের সভাপতি এডভোকেট কাজী লুমুম্বা লুমু। গত বছর ২৬ মার্চ রাজশাহীর কাটাখালিতে সড়ক দুর্ঘটনায় পীরগঞ্জের ১৭ জন নিহত হলেও প্রানে বেঁচে যান একমাত্র পাভেল ইসলাম। দুর্ঘটনায় পাভেলের বাবা মোখলেছার রহমান ও মা পারভীন বেগমসহ নিহত হন ১৭ জন। প্রথমে আহত পাভেলকে অচেতন অবস্থায় রাজশাহী মেডিকেলের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। এরপর চিকিৎসার সুবিধার্থে পাভেলকে প্রথমে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউ ও পরে নিউরো সার্জারি বিভাগে স্থানান্তর করা হয়। ৬১ দিন অচেতন থাকার পর ২২ মে’ ২১ জ্ঞান ফেরে পাভেলের । মা-বাবা হারা পাভেলের চিকিৎসার জন্য পীরগঞ্জে একটি চিকিৎসা সহায়তা কমিটি গঠন করা হয়। কাজী লুমু জানান, আমরা পাভেলের চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন সময়ে প্রায় ৩ লক্ষাধিক টাকা ব্যয় করা হয়েছে, এসময় উপস্থিত ছিলেন আব্দুল মান্নান মন্ডল বাচ্চু, কাজী লুমুম্বা লুমু, অবসরপ্রাপ্ত সরকারী শাহ্ আব্দুর রউফ কলেজের উপাধ্যাক্ষ শহিদুল ইসলাম পাশা, মোনায়েম সরকার, পাভেলের চাচা রফিকুল ইসলাম ও ফুফু। জানা গেছে, গত বছর ২৬ মার্চ সকালে একটি মাইক্রোবাসযোগে পীরগঞ্জের ১৮ জন রাজশাহীতে পিকনিকে যায়। দুপুর ২টার দিকে তাঁরা কাটাখালি থানার সামনে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা ঢাকাগামী হানিফ পরিবহনের একটি বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে মাইক্রোবাসটিতে আগুন ধরে যায়। ঘটনাস্থলেই চালকসহ ১৭ জন নিহত হন। বেঁচে যান পাভেল। তাঁর বাড়ি পীরগঞ্জের দ্বাড়িকাপাড়া গ্রামে।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © uttorersomoy.com
Design BY BinduIT.Com