মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ০৯:৪৪ পূর্বাহ্ন




বিয়ের কথা বলে ডেকে নিয়ে প্রেমিকাকে গণধর্ষণ

বিয়ের কথা বলে ডেকে নিয়ে প্রেমিকাকে গণধর্ষণ

পঞ্চগড় প্রতিনিধি :
পঞ্চগড়ে কাজি অফিসে যাওয়ার কথা বলে প্রেমিকাকে (১৫) ডেকে নিয়ে গণধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে। এ ঘটনায় প্রেমিক হাসানের (২৫) নাম উল্লেখসহ আরো কয়েকজনকে আসামি করে একটি মামলা করা হয়েছে।
রোববার আটোয়ারী থানায় ওই মামলা করে ভুক্তভোগী পরিবার। এর আগে শনিবার রাতে আটোয়ারী উপজেলার ধামোড় ইউপির বন্দরপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ধর্ষণের শিকার ওই কিশোরী তেঁতুলিয়া উপজেলার বাসিন্দা।

অভিযুক্তরা হলেন: আটোয়ারীর পুরাতন আটোয়ারী মালগোবা গ্রামের মৃত আমিনার রহমানের ছেলে হাসান, একই এলাকার ফতেহপুর গ্রামের খামির উদ্দিনের ছেলে সবুজ, আব্দুর রহমান, তার ছেলে আমিনুল ইসলাম ডিপজল, খাজিম উদ্দিনের ছেলে নজরুল ও কৈলাসের ছেলে ওমর।

জানা গেছে, এক বছর আগে মামার বাড়িতে যাওয়া-আসার সুবাদে হাসানের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক হয় ওই কিশোরীর। শনিবার সকালে বাড়ি থেকে বের হয়ে স্কুলে যায় ওই কিশোরী। এদিকে দুপুরে মোবাইলে কল দিয়ে বিয়ের কথা বলে তাকে পঞ্চগড়ে ডেকে নেন হাসান। এ সময় বিকেলে পঞ্চগড় পৌঁছালে কাজি অফিসে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে একই দিন রাত ৮টার দিকে বন্দরপাড়া গ্রামে নিয়ে যায়। পরে সেখানে হাসান ও তার বন্ধু সবুজ তাকে ধর্ষণ করে। এ সময় ওই এলাকার আব্দুর রহমান, তার ছেলে আমিনুল ইসলাম, তাদের প্রতিবেশী নজরুল ও ওমর সেখানে উপস্থিত হলে সবুজ ও হাসান পালিয়ে যান। এ সুযোগে কে তারাও ধর্ষণ করেন ওই কিশোরীকে। একপর্যায়ে তাককে ফেলে পালিয়ে যায় সবাই।

এদিকে, গভীর রাতে মান্নান নামে এক পথচারী ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে বন্দরপাড়া গ্রামের নায়েব আলীর বাড়িতে নিয়ে যান। এ সময় নায়েব আলী তার খালুকে খবর দেন। পরে রোববার ভোরে তাকে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পঞ্চগড়ের পুলিশ সুপার মো. ইউসুফ আলী বলেন, রোববার সকালে এ ঘটনায় মামলা করা হয়েছে। ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতার অভিযান শুরু হয়েছে। সন্দেহভাজন দুজনকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত সবাইকে গ্রেফতারের পর সংবাদ সম্মেলন করে বিস্তারিত জানানো হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © uttorersomoy.com
Design BY BinduIT.Com