শনিবার, ৩১ Jul ২০২১, ০৩:৫৮ অপরাহ্ন




পাখি শিকার রোধে সৈয়দপুরে বন্যপ্রাণী অপরাধ দমন ইউনিটের বিলবোর্ড স্থাপন

পাখি শিকার রোধে সৈয়দপুরে বন্যপ্রাণী অপরাধ দমন ইউনিটের বিলবোর্ড স্থাপন

শাহজাহান আলী মনন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি :
পাখি শিকার রোধে সচেতনতামূলক বিলবোর্ড স্থাপন করেছে বন্যপ্রাণী অপরাধ দমন ইউনিট। বাংলাদেশের বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও আবাসস্থল উন্নয়ন প্রকল্পের মাধ্যমে স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সেতুবন্ধন যুব উন্নয়ন সংস্থার সহযোগিতায় এই বিলবোর্ড স্থাপন করা হয়। উপজেলার উপর দিয়ে যাওয়া আঞ্চলিক মহাসড়কগুলোর প্রবেশপথ ও প্রস্থানের স্থানে বিলবোর্ড স্থাপনের এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা হয়।

পাখি সহ সকল বন্যপ্রাণী শিকার, হত্যা, লালন-পালন, ক্রয়-বিক্রয় বন্য প্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইন, ২০১২” অনুযায়ী দন্ডনীয় অপরাধ সম্বলিত সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে ও অসাধুদের সতর্ক করতে ১৫ জুন মঙ্গলবার নীলফামারী-সৈয়দপুর-দিনাজপুর-রংপুর সড়কের মিলনস্থল ওয়াপদা মোড়ে (গোল চত্ত্বর) বিলবোর্ড স্থাপন করা হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র (ভারপ্রাপ্ত) শাহিন হোসেন, সামাজিক বনায়ন নার্সারী ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহিকুল ইসলাম মুজকুরি, ফরেস্টার মোঃ শরিফুল ইসলাম, সেতুবন্ধন যুব উন্নয়ন সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোঃ আলমগীর হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মোঃ মাসুম বিল্লাহ ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মোঃ বেলায়েত হোসেন বিপু প্রমুখ।

বন্যপ্রাণী সংরক্ষণে বাংলাদেশ সরকার বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইন-২০১২ পাস করেছে। এ আইনে পাখি শিকার, হত্যা, আটক ও কেনা বেচা দন্ডনীয় অপরাধ যার সর্বোচ্চ শাস্তি ২ বছর কারাদণ্ড এবং ২ লাখ টাকা জরিমানা।

উল্লেখ্য, “পাখি বাঁচাও, প্রকৃতি বাঁচাও” এ শ্লোগানকে সামনে রেখে পাখির নিরাপদ আবাসস্থল নিশ্চিতের লক্ষে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সেতুবন্ধন যুব উন্নয়ন সংস্থা নীলফামারী জেলা সহ কয়েকটি উপজেলায় ২০১৩ সাল থেকে কাজ করে যাচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © uttorersomoy.com
Design BY BinduIT.Com