রবিবার, ১১ এপ্রিল ২০২১, ১১:৫৫ অপরাহ্ন




নানাবাড়ি এলাকায় মসজিদ করে দিলেন সাকিব

নানাবাড়ি এলাকায় মসজিদ করে দিলেন সাকিব

নিউজ ডেস্ক :
মসজিদের জায়গা সংকীর্ণ। কার্পেট নেই। শতাধিক মুসল্লি একসঙ্গে নামাজ আদায় করতে পারতেন না। নানা সমস্যায় থাকা মাগুরা সদর উপজেলার বারাশিয়া জামে মসজিদটি ভেঙে নতুন করে নির্মাণ করে দিয়েছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। মসজিদটি তিনি সুসজ্জিত করে দিয়েছেন। এখন সেখানে একসঙ্গে প্রায় তিনশ মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারেন। মসজিদে টাইলস ও এসি লাগানো হয়েছে।

এছাড়াও সাকিব আল হাসান মসজিদটি দ্বিতীয় তলা করা এবং মসজিদটির সঙ্গে একটি মডেল মাদ্রাসা করার ইচ্ছাও প্রকাশ করেছেন বলে জানিয়েছেন মসজিদের ইমাম হাফেজ মুফতি আতিকুল্লাহ।

তিনি বলেন, গত বছরের এপ্রিল মাসে মসজিদটি উদ্বোধন করা হলেও বিষয়টি গণমাধ্যমে প্রকাশ পায়নি।

স্থানীয়রা জানান, সাকিব আল হাসানের নানাবাড়ি মাগুরা সদরের বারাশিয়া এলাকায়। বারাশিয়া জামে মসজিদটি ১৯৮২ সালে নির্মাণ করা হয়। মসজিদে জায়গা কম থাকায় চার কাতারে একশর বেশি লোক নামাজ আদায় করতে পারতেন না। মসজিদটি আধুনিকও ছিল না। পরবর্তীতে সাকিব আল হাসানকে বললে তিনি মসজিদটি নির্মাণ করে সুসজ্জিত করে দেন।

স্থানীয়রা বলেন, সাকিব আল হাসান বাংলাদেশ ক্রিকেটের উজ্জল নক্ষত্র। যিনি এ দেশকে সারাবিশ্বের কাছে আলাদা পরিচিতি এনে দিয়েছেন।

বারাশিয়া এলাকার বাসিন্দা আতাউর রহমান বলেন, সাকিব আল হাসান তার নিজের অর্থায়নে প্রায় ২৫/৩০ লাখ টাকা ব্যয় করে এক মসজিদটি নির্মাণ করেছেন।

বারাশিয়া এলাকার আরেক বাসিন্দা আবু তালহা ঢালেন, আমাদের মসজিদটি ছোট ছিল। সাকিব আল হাসান মসজিদটি বড় করেছেন। মসজিদটি এখন সুসজ্জিত। তার জন্য আমাদের অফুরন্ত দোয়া থাকবে।

সাকিব আল হাসান মসজিদটি নিজস্ব তত্ত্বাবধানে নির্মাণ করেছেন বলে জানিয়েছেন তার ছোট মামা বারাশিয়া দাখিল মাদরাসার শিক্ষক মো. বাবলুর রহমান। তবে সাকিব বিষয়টি প্রচার করতে চাননি বলে তিনি জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © uttorersomoy.com
Design BY BinduIT.Com