বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ০৩:৪৪ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম
রহস্যময় ৮ মিনিটেই শেষ জীবন আত্মহত্যার আগে অন্তঃসত্ত্বা ছাত্রী চিরকুটে লিখল ‘আমার পেটে জীবনের বাচ্চা’ কাউন্সিলর কাপ টাইগার বার ফুটবল টূর্নামেন্ট-২০২০ উপলক্ষে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত ডিলারের অনিয়মের বিরুদ্ধে অভিযোগকারী ৬ সুবিধাভোগীর মাঝে নতুন কার্ড প্রদান রংপুর মহানগরীর ১৮নং ওয়ার্ডে রাস্তা ও ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু ডোমারের চিলাহাটি হলদিবাড়ি রেলপথ পরিদর্শনে ভারতীয় হাই কমিশনার ইমরান তিস্তার চরাঞ্চলে সারা বাংলা ৮৮’র শীত সামগ্রী বিতরণ পীরগঞ্জে সাংবাদিকদের সাথে নবাগত ইউএনও’র মতবিনিময় দ্বিতীয় ধাপে করোনা মোকাবেলায় রংপুরে মাঠে নেমেছে ত্বোহা কনজুমার্সএন্ড ক্রেডিটস রংপুরে মাস্ক না পড়ায় ৬ হাজার টাকা জরিমানা




দেশের একমাত্র পাথর খনিটি শ্রমিকদের আন্দোলনে অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠছে

দেশের একমাত্র পাথর খনিটি শ্রমিকদের আন্দোলনে অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠছে

নিউজ ডেস্ক :
মধ্যপাড়া পাথর খনির শ্রমিকদের আন্দোলনে অগ্নি গর্ভ হয়ে উঠছে খনি এলাকা। মধ্যপাড়া পাথর খনির শ্রমিকদের ৩মাসের বেতনভাতা ও ঈদ বোনাস না দেওয়ায় পাথরখনির ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের ৮শতাধিক শ্রমিকরা আজ ৩১জুলাই খনিগেটের সামনে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচী পালন করে আসছে। এসময় শ্রমিকদের শ্লোগানে শ্লোগানে খনি এলাকা প্রকম্পিত হয়ে উঠে।খনির চারিদিকে লোকজন আতংকে ছুটাছুটি করতে থাকে।এদিকে শ্রমিকদের বেতন ভাতা না দিয়ে আন্দোলন দমানোর জন্য ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জিটেসির লোকজন শ্রমিকদের ভয়ভীতি ও মিথ্যা মামলা দেওয়ার চেষ্টা করছে। শ্রমিক আমিনুল মুনসি বলেন আন্দোলন দমানোর জন্য জেটিসসি কতৃপক্ষ সেনাবাহিনীর একজন অবসর প্রাপ্ত মেজর হায়দারকে ৮দিন পুর্বে সিকিউরিটি ইনচার্জ পদে নিয়োগ দেয়।তিনি শ্রমিকদের ভয়ভীতি দেখার শুরু করে। এতে এলাকার পরিবেশ আরো ভয়াবহ হয়ে উঠেছে।শ্রমিক নেতা খোরশেদ আলম বলেন করোনার সময় জিটেসি বেতন বোনাস না দিয়ে ৮শতাধিক শ্রমিককে ছুটিতে পাঠায় বেতন ভাতা ও ঈদ বোনাস না পেয়ে শ্রমিকরা মানবেতর জীবন যাপন করতেছে।শ্রমিকদের পরিবার না খেয়ে দিনাতিপাত করতেছে।

যা খুবই দুঃখজনক।তিনি আরো বলেন করোনা কালে বেতনভাতা পরিশোধের জন্য সরকারী ঘোষনা থাকার শর্তেও তারা আমাদের পাওনা পরিশোধ করতেছে না। নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন কর্মকর্তা বলেন বেতন ভাতার টাকা ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জেটিসি আত্নসাৎ করার পায়তারা করছে।ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জেটিসি পাথর উত্তোলনের জন্য পেট্রোবাংলার একটি চুক্তিবদ্ধ প্রতিষ্ঠান।এলাকার রাজনেতিক ব্যক্তি ও সচেতন মানুষ নানা প্রশ্ন করছে ভাল প্রতিষ্ঠান কাজ না পেয়ে নাম সর্বস্ব প্রতিষ্ঠান কিভাবে দেশের একমাত্র কঠিন শিলা খনির পাথর উত্তোলনের কাজ পেল। এ প্রতিষ্ঠান কাজ পাওয়ার পর থেকে মধ্যপাড়া পাথর খনির মুখ থুবড়ে পড়েছে।পাথর উত্তোলনে আজ ও লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে পারেনি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জেটিসি।বেতন ভাতাও ঈদ বোনাস পরিশোধ না করায় খনির এ অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। এ বিষয়ে মতামত জানার জন্য জেটিসির প্রধান কাজী সিরাজুল ইসলাম এর সাথে বারংবার চেষ্টা করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি।পার্বতীপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হাফিজুল ইসলাম প্রামানিক বলেন শ্রমিকরা বেতন ভাতা না পাওয়ায় তারা মানবেতর জীবন যাপন করছে।তাদের বকেয়া বেতন ভাতা প্রদান করার জন্য ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জেটিসির কর্মকর্তারদের সাথে যোগাযোগ অব্যাহত আছে।দিনাজপুরের জেলা প্রশাসক মাহমুদুল আলম বলেন শ্রমিকদের আন্দোলনের বিষয়টির সমাধানের জন্য উদ্ধতন কতৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করা হচ্ছে। খনিটি দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুর উপজেলার হরিরামপুর ইউনিয়নে অবস্থিত।এ অচলাবস্থার সমাধান করা না হলে যে কোন সময় এপ্রতিষ্ঠানটি বন্ধ হয়ে যেতে পারে।এলাকার সচেতন মানুষ মনে করছে উদ্ধতন কতৃপক্ষ বিষয়টি গুরুত্ব দিলে তাড়াতাড়ি সমাধান হতে পারে।

নিউজটি শেয়ার করুন







© All rights reserved © uttorersomoy.com
Design BY BinduIT.Com